শুক্রবার , ৬ ডিসেম্বর ২০১৯
Home » ধর্ম » বাংলাদেশিদের ওমরাহ ভিসার নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার

বাংলাদেশিদের ওমরাহ ভিসার নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার

নিজস্ব প্রতিবেদক

দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর চালু হলো ওমরাহ হজের ভিসা। বাংলাদেশের নাগরিকদের জন্য ওমরাহ ভিসার ওপর যে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছিল সৌদি আরব, তা প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে। ঢাকায় সৌদি দূতাবাস থেকে ধর্ম মন্ত্রণালয়ে এ-সংক্রান্ত একটি চিঠি এসেছে বলে সোমবার নিশ্চিত করেছেন মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা আনোয়ার হোসাইন।

নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের একটি চিঠি সৌদি সরকারের কাছ থেকে ধর্মমন্ত্রণালয়ে এসে পৌঁছেছে। ওই চিঠিতে ওমরাহ হজের ভিসা বন্ধের যে নিষেধাজ্ঞা ছিল তা প্রত্যাহারের কথা জানানো হয়েছে। ফলে এখন থেকে বাংলাদেশিরা ওমরাহ হজের জন্য আবেদন করতে পারবেন বলে জানান আনোয়ার হোসাইন।

চিঠিতে আরো বলা হয়, ঢাকায় সৌদি দূতাবাস পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনুরোধে এবং বাংলাদেশি হাজিদের সম্মানে এ বছর (১৪৩৭ হিজরী) ওমরাহ ভিসা ইস্যু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সৌদি সরকার বিষয়টি অবহিত আছে। বাংলাদেশের জনগণ ভিসা পেতে সৌদি আরবের ওমরাহ এজেন্সি এবং কোম্পানির মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

ওমরাহ হজের নামে মানবপাচারের অভিযোগ এনে সৌদি সরকার চলতি বছরের শুরুর দিকে ওমরাহ হজের ভিসা বন্ধ করে দেয়। পরে সৌদি সরকার মানবপাচারের অভিযোগে জড়িত এজেন্সির বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার শর্তজুড়ে দেয়। সৌদি সরকারের দেওয়া শর্ত অনুযায়ী বাংলাদেশ সরকার ওমরাহ এজেন্সিগুলোর বিরুদ্ধে তদন্ত করে। ধর্মমন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোহাম্মদ শহিদুজ্জামানের নেতৃত্বে তিন সদস্যের কমিটি তদন্ত শেষ করে।

ওমরাহ হজের নামে মানবপাচারের অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় ৯৫টি এজেন্সির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানায় ধর্মমন্ত্রণালয়। তার মধ্যে ৬৯টি এজেন্সির লাইসেন্স বাতিল, জামানত বাজেয়াপ্তসহ জরিমানা করা হয়েছে। শুধু জরিমানা করা হয় ২৬টি এজেন্সিকে। আর ৯টি এজেন্সির বিরুদ্ধে পুনঃতদন্তের সিদ্ধান্ত নেয় ধর্ম মন্ত্রণালয়।

ধর্ম মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা আনোয়ার হোসাইন জানান, ওমরাহ হজের ভিসা চালু হওয়ায় ২০১৬ সালে ওমরাহ কার্যক্রম পরিচালনার জন্য প্রাথমিকভাবে ৭০টি এজেন্সির নাম চূড়ান্ত করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *